রেলকে বেসরকারিকরণ করার এমন কোনও প্রস্তাব নেই এবং ভবিষ্যতেও থাকবে না৷ এমনটাই দাবি করলেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল ।
 সোমবার গত চার বছরে রেলের কার্যকলাপ ব্যাখ্যা করতে সাংবাদিক বৈঠক করেন তিনি ।   রেল বিদেশি বিনিয়োগ চায় প্রযুক্তিগত উন্নতি এবং আধুনিকীকরণের জন্য৷ আর তার থেকেই উদ্বেগ বেড়েছে রাষ্ট্রায়ত্ত এই সংস্থাটির বেসরকারি হওয়ার সম্ভাবনা ঘিরে৷ এই আশংকা আরও দানা বাধে যখন রেলের ইউনিয়নের তরফ থেকে বিষয়টি নিয়ে ব্যাখ্যা চাওয়া হয়৷
শুধু জাতীয় নয় এদিন রেলমন্ত্রী আঞ্চলিক সংবাদ মাধ্যমের সঙ্গে মত বিনিময় করেন কারণ ভিডিও কনফারেনেসিং এর মাধ্যমে তিনি জানিয়েছেন, সরকার বুলেট ট্রেন প্রকল্প নিয়ে উদ্বিগ্ন তবে তার শীঘ্রই সমাধান হবে এবং প্রকল্প চলতে শুরু হবে৷
এদিন গোয়েল রেলের সাফল্যের তালিকা তুলে ধরতে গিয়ে তিনি জানান, ৫৯ % গড়ে নতুন লাইন কমিশনিং বেড়েছে৷ ২০০৯-২০১৪ যেখানে হয়েছিল প্রতিদিন হয়েছে ৪.১ কিমি সেখানে ২০১৪- ২০১৮ এই সময়ে হয়েছে প্রতিদিন গড়ে হয়েছে ৬.৫৩ কিমি৷

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]