নিউজ ডেস্ক নয়া দিল্লী ঃ-

সকাল অবধি বিস্ত পরিবারের ব্যস্ততা ছিল তুঙ্গে৷ বাড়ির ছেলের বিয়ে বলে কথা৷ সেই প্রস্তুতিতে ব্যস্ত ছিল সবাই৷ কিন্তু ওই দিন বিকালে বাড়ির সদস্যদের মাথায় বাজ ভেঙে পড়ল৷ খবর এল রাজৌরির সীমান্তে আইইডি বিস্ফোরণে শহিদ হয়েছেন মেজর চিত্রেশ সিং বিস্ত৷ এক ঘটনায় খুশি বদলে গেল বিষাদে৷ ছেলের প্রয়াণের খবরে শোকে গোটা পরিবার৷রাজৌরির নৌসেরা সেক্টরে নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর আইইডি পুঁতে রেখেছিল জঙ্গিরা৷ খবর পেয়ে শনিবার বিকালে সেখানে যান মেজর চিত্রেশ, এবং নিস্ক্রিয় করার সময় সেটি ফেটে যায়৷ শহিদ হন চিত্রেশ৷ আর কিছুদিন পরই দেরাদুনের বাড়িতে ফেরার কথা ছিল তাঁর। কারণ মার্চ মাসে তাঁর বিয়ের দিনক্ষণ ঠিক হয়ে গিয়েছিল৷ ছুটিও মঞ্জুর হয়ে গিয়েছিল৷ বাড়ি তিনি ফিরবেন ঠিকই৷ তবে কফিনবন্দি হয়ে৷ বৃহস্পতিবার পুলওয়ামায় ভয়াবহ জঙ্গি হামলার ঘটনায় এখনও ক্ষোভে ফুঁসছে গোটা দেশ। তার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ফের রক্তাক্ত উপত্যকা৷
দেশের ইতিহাসে সবথেকে বড় জঙ্গি হামলার পর শুক্রবার সেনাকে পূর্ণ স্বাধীনতা দেওয়া হয়েছে৷ জঙ্গিদের বিরুদ্ধে কবে, কখন ও কীরকম অভিযান চালানো হবে তা ঠিক করবে সেনা৷ একটি অনুষ্ঠানে এসে এমনটাই জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷ ‘‘সন্ত্রাসবাদ দমনে ভারতীয় সেনাকে পুরো স্বাধীনতা দেওয়া হল৷ কী কায়দায় জবাব দেওয়া হবে তা ঠিক করবে নিরাপত্তা বাহিনী।’’ পাশাপাশি মোদী পুলওয়ামার হামলাকারীদের সতর্ক করে দেন৷ বদলার সুরে জানান, হামলাকারীরা বড় ভুল করেছে৷ এর চরম মূল্য তাদের চোকাতে হবে৷ এই হামলার জন্য যাদের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তাদের পাশে আছে সরকার৷ তারা বিচার পাবে৷

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]