ওয়েব্ ডেস্ক : ২৩শে মার্চ , ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি চিঠি লিখে পাকিস্তান দিবসের শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে। লিখেছিলেন, পার্শবর্তী দেশ হিসাবে পাকিস্তানের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক হওয়া উচিত বন্ধুত্বপূর্ণ। আর তাই সেই সম্পর্ক তৈরি হওয়া উচিত বিশ্বাসেরওপর নির্ভর করে। যেখানে থাকবেনা কোনো সন্ত্রাস এর পরিবেশ।

আশা ছিল যে , ইমরানের পক্ষ থেকেও ফেরত আসবে হয়তো বন্ধুত্বপূর্ণ বার্তাই। কিন্তু ইমরান খান জবাবি চিঠিতে জানিয়ে দিয়েছেন, কাশ্মীর সমস্যার সমাধান না হলে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ বা সৌহার্দ্রপূর্ণ সম্পর্ক স্থাপন কখনই সম্ভব নয়।

ইমরান পাকিস্তান দিবসের গুরুত্ব বর্ণনা করতে গিয়ে আরও কিছু বার্তা দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদিকে। ফলে ভবিষ্যতে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক যে সম্ভব নয়, তাও যেন ইশারায় বুঝিয়ে দিয়েছেন তিনি ।

চিঠির শুরুতেই প্রধানমন্ত্রী মোদিকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তিনি। তিনি আরও বলেছেন, পাকিস্তান সব সময়ই ভারত সহ সমস্ত পড়শি দেশের সঙ্গে শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান চায়। এর পরেই কাশ্মীর প্রসঙ্গ তুলে খোঁচা দিয়েছেন ইমরান।

তিনি লিখেছেন, দক্ষিণ এশিয়ায় স্থায়ী শান্তি বজায় রাখার জন্য ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে কাশ্মীর ইস্যুর সমাধান হওয়া প্রয়োজন। কাশ্মীর ইস্যুর সমাধান হলেই দুই দেশের মধ্যে শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান হবে।

আগে ভারতে তৈরি কোভিড ভ্যাকসিন পাকিস্তানে পৌছেছিল। দুই দেশের মধ্যে ব্যবসায়িক সম্পর্ক স্তব্ধ হয়েছে বহুদিন। কিন্তু ওষুধ ও জরুরিকালীন জিনিসপত্র আদানপ্রদানের ক্ষেত্রে সুযোগ রয়েছে। করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য বিশ্বের বহু দেশকেই ভ্যাকসিন দিয়ে সাহায্য করেছে ভারত। পাকিস্তানের ক্ষেত্রেও ভারত সৌহার্দের পরিচয় রেখেছে। কিন্তু পাকিস্তান তা কখনও ধরে রাখেনি।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]