নিউজ ডেস্ক কলকাতা ঃ- 

 পুলওয়ামার জঙ্গি হামলার পর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন, ভোট যখন দরজায় কড়া নাড়ে তখন তোমার মনে হল, দেশে একটা যুদ্ধ বাঁধানো দরকার আর একবার৷ আবার মানুষের জীবন নিয়ে খেলা করা দরকার৷ মুখ্যমন্ত্রী মমতা যেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর ভাষাতেই কথা বলেছেন, ২০ই ফেব্রুয়ারী নবান্নে তিনি বিজেপিকে বাক্যবাণে বিদ্ধ করতে চেয়েছেন৷ মমতা বলেছেন, আমরা সবাই পাকিস্তানি আর ওরা ভারতীয়৷ সারা দেশকে চমকে ধমকে বেড়াচ্ছে৷ পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা মোদী সরকারের বিরোধিতা করতে গিয়েই পাকিস্তানের সুরে কথা বলে ফেলেছেন তার স্পষ্ট প্রমাণ ভাষণেই রয়েছে৷ বিজেপির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক তথা রাজ্যের পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয় ট্যুইটারে মমতা এবং ইমরানের বক্তব্য পেশ করে বিষয়টি প্রতিষ্ঠিত করতে চেষ্টা করেছেন৷ অন্যদিকে পুলওয়ামা জঙ্গি হামলায় দেশের বীর জওয়ানদের মৃত্যুতে সারা দেশ যেখানে প্রতিশোধের আগুনে জ্বলছে, সেখানে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর এহেন মন্তব্যে ক্ষুব্দ দেশবাসী৷ এদিকে, পুলওয়ামার ঘটনা নিয়ে পাক প্রধানমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়ার পর পরই ভারত তার পাল্টা প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে৷ ১৯ই ফেব্রুয়ারী বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র রবিশ কুমার পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের মন্তব্যের সমালোচনা করে বলেন, ‘‘তিনি যা বলেছেন তা বাজে অজুহাত ছাড়া আর কিছু নয়৷’’কারণ পুলওয়ামার ভয়াবহ জঙ্গি হামলার পর গোটা বিশ্ব ভারতের পাশে এসে দাঁড়িয়েছে৷ বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র আরও জানান, পাক প্রধানমন্ত্রী হামলার নিন্দাও করেননি, না তো তিনি শহিদ পরিবারদের জন্য কোনও শোকজ্ঞাপন করেছেন৷ অবশ্য পাকিস্তানের কাছ থেকে এর থেকে বেশি কিছু আশা করা যায় না৷

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]