নিউজ ডেস্ক,  হাওড়া :- তৃণমূলের নোংরা রাজনীতির শিকার উলুবেড়িয়ার সাধারণ মানুষ । 
গত ২৬ শে সেপ্টেম্বর ১২ ঘন্টার বাংলা বন্ধ ডেকেছিল পশ্চিমবঙ্গের প্রধান বিরোধী দল বিজেপি । বন্ধের প্রধান ইস্যু ছিল ইসলামপুরের দারভিট হাই স্কুলে পুলিশের গুলিতে মৃত ২ ছাত্র রাজেশ সরকার ও তাপস বর্মন এর হত্যার প্রতিবাদ । সারা রাজ্যে বন্ধ যথাযথভাবে পালিত হলেও পশ্চিমবঙ্গের শাসক দল তৃণমূল চেষ্টা করেছিল ব্যর্থ করার । কোথাও তৃণমূল নেতার বিজেপি মহিলা কর্মীকে লাথি মারা, কোথাও মাথা ফাটিয়ে দেওয়া তো কোথাও বিজেপির কর্মীদের পুলিশের সামনে প্রকাশ্যে মারধর । এসব দেখেও কোন এক অজ্ঞাত কারণে নি:শ্চুপ দর্শকের ভূমিকা পালন করে পশ্চিমবঙ্গের পুলিশ । 

এখানে ঘটনাটি পুরোপুরি আলাদা । মা মাটি মানুষের সরকার বলে পরিচিত তৃণমূল নেতারা বন্ধ করে দিল সাধারণ মানুষের চলাফেরার প্রধান মাধ্যম । কারনটা হল বন্ধের দিন বন্ধকে সমর্থন করে কিছু বাস মালিক তাদের বাস রাস্তায় নামায়নি  । এটাই হলো গুরুতর  অপরাধ, তাই বড় বড় করে পোস্টার মেরে হাওড়ার উলুবেরিয়ায় বাস পরিষেবা সাত দিনের জন্য বন্ধ করে দিল মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জীর উন্নয়নের কান্ডারীরা । যে মমতা ব্যানার্জি নাকি বন্ধ ব্যর্থ করার জন্য বেশি করে বাস রাস্তায় চালানোর কথা বলেছিলেন তার দলেরই উন্নয়নের কান্ডারীরা সেই বাস পরিষেবা বন্ধ করে দিয়ে প্রমাণ করে দিলো তারা জনগণের সাথে নয় আসলে  তারা স্বৈরাচারীতার সাথে ।

এই ঘটনার ফলে নাজেহাল অবস্থা বাস কর্মী , মালিক সহ নিত্যযাত্রীদের । পুলিশের গুলিতে ছাত্র খুনের প্রতিবাদে বিজেপির ডাকা বাংলা বন্ধকে সার্থক করতে রাস্তায় বাস না নামানোর অপরাধে আজ দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ থেকে শুরু করে নিত্যযাত্রীদের ।  তাই মানুষের পক্ষ থেকে প্রশ্ন উঠেছে কোন উন্নয়নের উপর জোর দিয়ে তৃণমূল নেত্রী মা মাটি মানুষের গান গাইছেন ??

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]