বিগত কিছুদিন আগেই রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল ভারতীয় রেলের বিভিন্ন জোনের শীর্ষ আধিকারিকদের সঙ্গে এক অভ্যন্তরীণ বৈঠকে কড়া বার্তা দিয়েছেন বলে জানা যায়। 

সেইসাথে প্রত্যেক আধিকারিকদের কাছ থেকেই তিনি বহু ট্রেন দেরিতে চলার বিষয়ে কৈফিয়েত চান ,  এর পরই নাকি তাঁর হুঁশিয়ারি, এবার থেকে ঠিক সময়ে ট্রেন না চললে, আটকে যেতে পারে আধিকারিকদের প্রোমোশন। বাড়বে না বেতনও।
এমনকী রেললাইন সারানোর মতো অজুহাতেও যে আর কাজ হবে না, কড়া ভাষায় সেই কথাও জানান রেলমন্ত্রী। গত অর্থবর্ষে সারা দেশে ত্রিশ শতাংশ ট্রেন দেরিতে চলেছে। গত মাসেই ট্রেনের দেরি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রশ্নে বিদ্ধ হতে হয়েছিল রেলমন্ত্রীকে। এর পরই বিভিন্ন জোনের শীর্ষ আধিকারিকদের তাঁর এভাবে চাপে রাখা, দরকারে তাঁদের প্রোমোশন আটকে দেওয়ার মতো অবস্থান নেওয়া নিঃসন্দেহে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে । 
সত্যিই কি তবে এবার হাঁফ ছেড়ে বাঁচবে আম জনতা ? একেবারে ঘড়ি ধরে আসবে-যাবে ট্রেন ? যাত্রীদের ভোগান্তি কমাতে এবার কড়া পদক্ষেপ নিতে চলেছে ভারতীয় রেলমন্ত্রক এবং এই যুগান্তকারী পদক্ষেপ থেকে কতটা পরিবর্তন আসতে চলেছে যাত্রী মহলে সেটাই এখন দেখার । 

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]