নিউজ ডেস্ক : পোষ্য কুকুরদের নিয়ে না গেলে তিনিও উদ্ধার কর্মীদের সাথে যাবেন না, বললেন বন্যায় আটকে পড়া সুনীতা ।


কেরলের বন্যাকবলিত ত্রিচুরে উদ্ধার কাজে গিয়ে হতবাক ত্রাণ কর্মীরা । কারণ বন্যার কবলে আটকে পড়া এক মহিলার আবদারে তারা কূলকিনারা খুঁজে পাচ্ছিলেন না । জানা যায় শনিবার বন্যায় আটকে পড়া সুনিতার খোঁজ পান Human Society International নামক একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার কর্মীরা। খবর পাওয়া মাত্রই তাকে উদ্ধার করতে গেলে বাধা দেয় সুনীতা কারণ তার সাথে থাকা 25 টি কুকুর কে তার সাথে নিয়ে যেতে বলে আবদার করেন সুনীতা।

উদ্ধারকারী দলে থাকা শেলী বর্মা জানান ২৫ টি কুকুরের মধ্যে অধিকাংশকেই রাস্তা থেকে তুলে এনেছেন সুনীতা এবং তার স্বামী । বন্যা কবলিত কেরলে নিজেদের জীবন বাঁচাতে অনেকেই তাদের পোষ্য কুকুরকে ফেলে পালিয়েছেন , সেই ফেলে রাখা অসহায় কুকুরগুলো কেউ আশ্রয় দিয়েছিলেন ওই দম্পতি । স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার কর্মীর কাছ থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী ইতিমধ্যে সুনীতা ও তার স্বামী কুকুর জন্য অর্থ সংগ্রহ করতে শুরু করেছে যাতে বন্যার পরে ওই অর্থ দিয়ে কুকুরগুলির আশ্রয় তারা তৈরি করতে পারে ।

যুগপুরুষ স্বামী বিবেকানন্দ বলেছিলেন জীবে প্রেম করে যেই জন, সেই জন সেবিছে ঈশ্বর । সত্যি প্রকৃতির গ্রাসে তলিয়ে যাওয়া কেরলের এই দম্পতি প্রমাণ করলেন যে পশু প্রেম মানুষকে কোন পর্যায়ে নিয়ে যেতে পারে, তাই তাদের এই উদ্যোগকে সারা ভারতবর্ষের পক্ষ থেকে আমাদের সেলাম । 

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This is todays COVID data

[covid-data]